সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএম এস কিবরিয়ার ১৩তম মৃত্যুবার্ষিকী বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে রাজধানী ঢাকা ও হবিগঞ্জে পালিত হয়েছে। শাহ এএমএস কিবরিয়ার মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে মরহুমের বনানীর কবরে শনিবার (২৭ জানুয়ারি) সকালে পুষ্পস্তবক অর্পণ, কবর জিয়ারত ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়। এতে কিবরিয়ার পরিবারের সদস্যবৃন্দসহ আত্মীয়-স্বজন ও শুভাকাঙ্খীরা উপস্থিত ছিলেন। এ উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট কেন্দ্রীয় কমিটি শনিবার রাজধানীর ওয়ারীতে অবস্থিত সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অস্থায়ীভাবে স্থাপিত মরহুম কিবরিয়ার প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও এক আলোচনা সভার আয়োজন করে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন জোটের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক, সাবেক সংসদ সদস্য সারাহ বেগম কবরী। এতে বক্তব্য রাখেন সৈয়দ হাসান ইমাম, এটিএম শামসুজ্জামান, চিত্রনায়ক ফারুক, পীযূষ বন্দোপাধ্যায়, মুক্তিযোদ্ধা মোবারক আলী শিকদার, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক অরুন সরকার রানা, কন্ঠশিল্পী মনোরঞ্জন ঘোষাল, কবি রবীন্দ্র গোপ প্রমুখ।

সভায় বক্তারা দ্রুত কিবরিয়া হত্যায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়ে বলেন, কিবরিয়ার মতো অর্থনীতিবিদ বাংলার মাটিতে আর কখনো জন্মাবে না। এদিকে হবিগঞ্জে সাবেক অর্থমন্ত্রী কিবরিয়ার মৃত্যুবার্ষিকী বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যদিয়ে পালন করেছে জেলা আওয়ামী লীগ ও যুবলীগসহ বিভিন্ন সংগঠন। শুক্রবার সকালে জেলা যুবলীগের উদ্যোগে বৈদ্যের বাজারে কিবরিয়া স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানানো হয়। এরপর একটি শোকর‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়।

র‌্যালি শেষে পথসভায় বক্তব্য রাখেন জেলা যুবলীগের সভাপতি আতাউর রহমান সেলিম, সাংগঠনিক সম্পাদক ফেরদৌস আহমেদ, সফিকুজ্জামান হিরাজ, শাহ আলম সিদ্দিকী প্রমুখ। গত শুক্রবার রাতে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবু জাহির এমপির সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যের মধ্যে দলের জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক আবদুল মজিদ খান এমপি বক্তব্য দেন।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here